এক জীবনে কত মেনে নেয়া যায়!

0

mourn picক্যামেলিয়া শুভ: সেই ছোটবেলা থেকেই শুনছি বাস্তবতা বড্ড কঠিন , কম্প্রোমাইজ কর , মানিয়ে নাও।  আম্মা বলত সব কিছুর সাথে মানিয়ে চলাটাই বুদ্ধিমানের কাজ । আব্বা বলত , দিবা স্বপ্ন দেখা বাদ দাও , বাস্তব বুঝে চলো। আত্মীয় বন্ধুর মুখেও সেই একই বুলি খাপ খাইয়ে নাও, মেনে নাও , মানিয়ে নাও।

চারদিকে মানিয়ে নেয়াদেরই চর্চা। যে ছেলেটা বাবার ইচ্ছায় রং-তুলি ছেড়ে ডাক্তারি পড়ছে সে ভাল ছেলে , যে মেয়ে স্বামীর ইচ্ছায় গান ছেড়ে গৃহিণী হয়েছে সে ভাল মেয়ে। যে স্বামী বৌ এর চাপে সততা ছেড়েছে সে ভাল স্বামী। যে বাবা সন্তানদের জন্য নিজের স্বপ্ন ছেড়েছে, সে ভাল বাবা । এমন কি দাঁড়ানোর জায়গা না থাকা সত্ত্বেও যখন বাস কন্ডাক্টর বলে, ‘সিট খালি, সিট খালি’ তখন যে যাত্রী মানিয়ে নিয়েছে সে-ই ভাল যাত্রী।  ভালটা মানেই যেন জগতের সাথে মানিয়ে নেয়া ।
সারাটা জীবন মানিয়ে নেবার পরে জীবনের শেষ দিনগুলোতে নিজের জন্য থাকে শুধুই সবার সহানুভূতি, আর কিছুই না ।

জর্জ বার্নার্ড শ বলেছিলেন, কাণ্ডজ্ঞানসম্পন্ন মানুষ মাত্রই বাস্তব জগতের সঙ্গে নিজেকে খাপ খাইয়ে নেয়। শুধু অল্প কয়েকজন মানুষ যারা কাণ্ডজ্ঞান সম্পন্ন নয়, তারা জগতকে নিজের সঙ্গে খাপ খাইয়ে নেয়ার চেষ্টা করে যায় । এই কাণ্ডজ্ঞানহীন মানুষদের উদ্ভাবনী পৃথকধারার কাজকর্মের উপরেই পৃথিবীর অগ্রগতি সম্পূর্ণ নির্ভর করে ।

আমি বলি, সব কিছুতে মানিয়ে নিতে নেই। কাণ্ডজ্ঞানহীন, বেপরোয়া, বেয়ারা হয়ে জগতটাকে নিজের সাথে মানাবার চেষ্টা করেই দেখ। এক জীবনে পেছন থেকে টেনে ধরার লোক পাওয়া গেলেও সামনে ঠেলে দেবার লোক পাওয়া যায় না। তাই বলে থেমে থেকো না। যারা বলে তুমি স্রোতের বিপরীতে চলছো তারা জানে না তুমি আসলে নতুন কিছু করছ। হয়ত ভুল , তাতে কি এই ভুল -শুদ্ধটা তোমাকে কে বুঝতে শেখাবে। এই ভুল করা মানুষের দলে আছে আবদুল কালাম , বার্নার্ড শ, জীবনানন্দ , সক্রেটিস কিংবা আলফ্রেড নোবেল সহ অসংখ্য অনন্য মানুষ । আজ যারা বলে তুমি উচ্ছন্নে যাচ্ছ , তোমার কাণ্ডজ্ঞান নেই, কিন্তু যেদিন তুমি সফল হবে তারাই সেদিন তোমাকে নিজের কাছের কেউ বলে গর্ব করে পরিচয় দেবে ।

জীবন একটা , তাই এটাই শেষ সুযোগ। শেষ বয়সে কি করলাম ভেবে আফসোস করবে, নাকি গর্ব করে বলবে, আমি চেষ্টা করেছি এবং পেরেছি।

শেয়ার করুন:
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

লেখাটি ১৯৪ বার পড়া হয়েছে


উইমেন চ্যাপ্টারে প্রকাশিত সব লেখা লেখকের নিজস্ব মতামত। এই সংক্রান্ত কোনো ধরনের দায় উইমেন চ্যাপ্টার বহন করবে না। উইমেন চ্যাপ্টার এর কোনো লেখা কেউ বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করতে পারবেন না।

Copy Protected by Chetan's WP-Copyprotect.