স্ত্রী নির্যাতনে দ. এশিয়ায় শীর্ষে বাংলাদেশ

sisu nirrjatonউইমেন চ্যাপ্টার: নিজ স্ত্রীকে যৌন নিপীড়ন বা ধর্ষণের ক্ষেত্রে দক্ষিণ এশিয়ার মধ্যে বাংলাদেশের অবস্থান শীর্ষে। বাংলাদেশে প্রতি পাঁচজনের একজন বিবাহিত নারী তার স্বামীর নানারকম যৌন নিপীড়নের শিকার হচ্ছে।

সম্প্রতি জাতিসংঘ শিশুবিষয়ক তহবিল বা ইউনিসেফের এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

এতে বলা হয়েছে, ১৫ থেকে ১৯ বছরে বয়ঃসন্ধিকালে বিবাহিত নারীরা প্রধানত এ যৌন নিপীড়নের শিকার হচ্ছে।

দক্ষিণ এশিয়ার মধ্যে বাংলাদেশের পরেই রয়েছে ভারত ও নেপালের অবস্থান। ৪২টি দেশের তথ্য নিয়ে প্রতিবেদনটি প্রকাশ করা হয়েছে। প্রকাশিত প্রতিবেদনে দেখা যায়, দক্ষিণ এশিয়ায় প্রতি ১০ জনের একজন নারী স্বামীর হাতে যৌন নিপীড়নের শিকার হয়। বাংলাদেশে এ ধরনের স্ত্রী যৌন নির্যাতনকে একটি ‘স্বাভাবিক ঘটনা’ হিসেবে উল্লেখ করা হয়েছে।

এছাড়া প্রতিবেদনে দেখা যায়, স্বামীর হাতে শারীরিক নির্যাতনের ক্ষেত্রেও বাংলাদেশে দক্ষিণ এশিয়ায় সবার উপরে আছে। বাংলাদেশে শতকরা ৪৭ শতাংশ বিবাহিত নারী স্বামীর শারীরিক নির্যাতনের শিকার হচ্ছে। ভারতে এ হার ৩৪ শতাংশ। শারিরিক নির্যাতনের হার সবচেয়ে বেশি আফ্রিকার দেশ গিনিতে। সেখানে এ হার ৭৩ শতাংশ।

প্রকাশিত প্রতিবেদন অনুসারে ৪২ দেশের অর্ধেকেরও বেশি দেশে প্রতি তিনজনের একজন বিবাহিত নারী স্বামীর শারীরিক, যৌন এবং মানসিক নির্যাতনের শিকার হচ্ছে।

 

শেয়ার করুন:
Copy Protected by Chetan's WP-Copyprotect.