টাঙ্গাইলের যৌনকর্মীরা তাদের পল্লীতে ফিরতে পারেননি

stop_violence_against_womenউইমেন চ্যাপ্টার:  টাঙ্গাইলের যৌনকর্মীদের ফিরতে দেয়া হয়নি তাদের পল্লীতে। তাদের সবাইকেই সেই জায়গা থেকে সরিয়ে দেয়া হয়েছে। টাঙ্গাইল জেলা প্রশাসক মাহবুব হোসেন সম্প্রতি বিবিসি বাংলাকে জানিয়েছেন, যৌনকর্মীদের নিরাপত্তার কথা ভেবে তাদের সরিয়ে আনা হয়েছে। তবে কিছু কর্মীকে একটি এনজিওতে থাকা খাওয়ার ব্যবস্থা করা হয়েছে।

টাঙ্গাইলে উচ্ছেদ হওয়া কান্দাপাড়া যৌনপল্লীর বাসিন্দারা ফিরতে শুরু করার পর, তাদেরকে উচ্ছেদের দাবিতে বৃহস্পতিবার আবারও বিক্ষোভ হয়।

জেলা অসামাজিক কার্যকলাপ প্রতিরোধ কমিটি নামে একটি সংগঠনের হয়ে স্থানীয় মুসল্লিরা বৃহস্পতিবার মিছিল নিয়ে পল্লীতে যাবার চেষ্টা করলে পুলিশ তাতে বাধাও দেয়।

এমনকি আজ শুক্রবার যৌনকর্মীরা ওই পল্লী থেকে সরে না গেলে বিক্ষোভ-হামলা হতে পারে এই আশংকায় স্থানীয় প্রশাসন কর্মীদের সবাইকে নিরাপদ জায়গায় সরিয়ে নেয়ার উদ্যোগ নেয়।

যৌনকর্মীদের অনেকে দাবী করছেন প্রায় দুশো বছরের পুরনো ওই পল্লীতে প্রায় তিন একরেরও বেশি জমির মালিক যৌনকর্মীরা নিজেরাই।

ওই জমি বুঝে পাওয়ার যে দাবী তারা তুলেছেন প্রশাসন তা বিবেচনায় এনে পনের দিন সময় চেয়েছে বলে জানিয়েছেন জেলা প্রশাসক মাহবুব হোসেন।

যৌনকর্মীরা বলছেন, নিরাপত্তার কথা ভেবে পল্লীর সামনে তারা আপাতত অবস্থান করছেননা, তবে তারা তাদের অধিকার আদায়ের জন্য চেষ্টা চালিয়ে যাবেন।

প্রশাসনের আশ্বাস অনুযায়ী আগামী পনের দিন পর্যন্ত অপেক্ষা করবেন তারা।

শেয়ার করুন:
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
Copy Protected by Chetan's WP-Copyprotect.