তুরিন আফরোজের বাড়িতে বোমা নিক্ষেপ

Turin 1উইমেন চ্যাপ্টার: আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালের আইনজীবী তুরিন আফরোজের বাড়িতে রোববার রাত পৌণে নয়টার দিকে বোমা নিক্ষেপ করা হয়েছে। এতে তুরিনের কিছু না হলেও তার নিরাপত্তা রক্ষী এক পুলিশ সদস্য আহত হয়েছে বলে জানান ট্রাইব্যুনালের এই প্রসিকিউটর।

উইমেন চ্যাপ্টারকে তিনি বলেন, অসুস্থতার কারণে দুদিন হাসপাতালে থাকার পর আজই তিনি বাসায় ফেরেন। নিচতলায় মায়ের বাসা থেকে নেমে বাসার আঙিনায় হাঁটাহাঁটি করার সময় একটি বোমা ছুঁড়ে মারা হয় ভেতরে। এসময় তার নিরাপত্তার দায়িত্বে থাকা একজন পুলিশ সদস্য আহত হন। কিন্তু অপর একজন সদস্য মোটর সাইকেলে থাকলেও অজ্ঞাত কারণে তিনি কোন ব্যবস্থা নেননি।

বোমা হামলার পর প্রসিকিউটারের বাড়ির নিরাপত্তা জোরদার করা হয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

এদিকে বিএনপি-জামায়াত জোটের হরতালের প্রথম দিন রোববার সন্ধ্যার পর মোহাম্মদপুরে প্রাইভেটাইজেশন কমিশনের চেয়ারম্যান মীর্জা জলিল এবং সংসদ সদস্য এনামুল হকের বাড়ির সামনেও বোমার বিস্ফোরণ ঘটে।

প্রাইভেটাইজেশন কমিশনের চেয়ারম্যান মীর্জা জলিলের মোহাম্মদপুরের বাড়ির  মূল ফটকের সামনে দুটি হাতবোমা বিস্ফোরণ ঘটে রাত ৯টার দিকে।

বায়তুল আমান হাউজিংয়ের ১২ নম্বর রোডের ৫৩৯ নম্বর পাঁচ তলার বাড়ির চতুর্থ তলায় থাকেন আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদের এই সদস্য। বিস্ফোরণের সময় তিনি বাড়িতে ছিলেন।

মীর্জা জলিল বলেন, প্রাইভেটকারে এসে দুর্বৃত্তরা বোমা ফাটিয়ে দ্রুত চলে যায়।

আদাবর থানার ওসি শামিমুর রশীদ বলেন, ওই ঘটনার পর প্রাইভেটাইজেশন কমিশনের চেয়ারম্যানের বাড়ির নিরাপত্তা জোরদার করা হয়েছে।

ওই এলাকায় থাকা সংসদ সদস্য এনামুল হকের বাড়ির সামনেও প্রায় একই সময়ে বোমা বিস্ফোরণ ঘটে বলে ওসি জানান। এনামুল রাজশাহীর বাগমারা আসনে সরকারদলীয় সংসদ সদস্য।

এছাড়া মৌচাকে দেশ টিভি ও ভোরের কাগজের কার্যালয় এবং মিরপুরে মোহনা টিভির কার্যালয়ের সামনেও কয়েকটি হাতবোমার বিস্ফোরণ ঘটানো হয়।

হরতালের আগের দিন আপিল বিভাগের বিচারপতি এস কে সিনহার বাড়িতে বোমা বিস্ফোরণ ঘটানো হয়। আপিল বিভাগের যে বেঞ্চ যুদ্ধাপরাধী আব্দুল কাদের মোল্লার ফাঁসির রায় দিয়েছে, বিচারপতি সিনহা ওই বেঞ্চের সদস্য।

রাত ৯টার দিকে মিরপুরে সংসদ সদস্য কামাল আহমেদ মজুমদার মালিকানাধীন মোহনা টেলিভিশনের কার্যালয়ে সামনে একটি হাতবোমার বিস্ফোরণ ঘটে।

কামাল মজুমদারের সহকারী মোজাম্মেল মজুমদার বলেন, “একটি হাতবোমা বিস্ফোরিত হয়েছে, আরেকটি তাজা হাতবোমা নিরাপত্তা রক্ষীরা উদ্ধার করে পুলিশকে দিয়েছে।”

এছাড়াও দৈনিক ভোরের কাগজ ও দেশটিভির কার্যালয়ের সামনে রাতে চারটি বোমা বিস্ফোরণের খবর পাওয়া গেছে।

রোববার রাতে পুরানা পল্টনে সিপিবি কার্যালয়ের সামনেও কয়েকটি হাতবোমার বিস্ফোরণ ঘটানো হয়। এতে জামায়াত-শিবির জড়িত বলে দাবি করেছে দলটি।

সিপিবি সভাপতি মুজাহিদুল ইসলাম সেলিম ও সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ আবু জাফর আহমেদ এক বিবৃতিতে বলেন, “রাজনৈতিক অচলাবস্থার সুযোগে জামায়াত-শিবির চক্র সক্রিয় হয়ে উঠেছে। অচলাবস্থা টিকিয়ে রাখতে নানা ষড়যন্ত্র চালিয়ে যাচ্ছে তারা।”

এদিকে বোমাবাজির পাশাপাশি হরতালে গাড়ি পোড়ানোর ঘটনাও চলছে। রাত সাড়ে ৮টার দিকে প্রধানমন্ত্রীর কার্ডালয় সংলগ্ন ট্রাস্ট ফিলিং স্টেশনের সামনে একটি যাত্রীশূন্য লেগুনা গাড়িতে আগুন দিয়ে পালিয়েছে দুর্বৃত্তরা।

হরতালের দ্বিতীয় দিনে আরও ব্যাপক নাশকতার আশংকা করা হচ্ছে।

শেয়ার করুন:
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
Copy Protected by Chetan's WP-Copyprotect.