পুরুষের নিশ্চিত নষ্টামির গল্পগুলো কেন উপেক্ষিত?

সায়রা সিমি:

নষ্ট নারী আর নষ্ট পুরুষ এর মধ্যে পার্থক্য কী? পার্থক্য বের করার সময়-সুযোগ মনে হয় কোনোদিন কারো হয়ইনি। নারীকে নিয়ে কত মাতামাতি, নারীর চলন, বলন, পোষাক, নারীর গতিবিধি সব দুই পাটি দাঁতের মাঝখানে বিদ্যমান একটি মাত্র জিহবা দিয়ে ব্যাখ্যা করা শুধু সহজই নয়, অনেকটা প্রচলিত জীবনধারার মতই স্বাভাবিক।

নষ্ট নারীকে বিশেষায়িত করার তৃপ্তি মেলে নষ্টামি শব্দ যোগে। সম্ভবত তাও তৃপ্তি মেলে না। কিন্তু নষ্ট পুরুষ! পচে গলে দুর্গন্ধ ছড়ানো পুরুষ দেখতে কেমন! তার কয়টা হাত কয়টা পা! সে প্রথম কবে নষ্ট হয়েছে তার খবর চকচকে জিজ্ঞাসু, পিপাসু চোখ নিয়ে কে কবে জানতে চেয়েছে! আমার এই জীবনে আমি কোনো লেখক লেখিকাকে পুরুষ এর নষ্টামি নিয়ে পুরুষ কে জোর গলায় “নষ্ট পুরুষ” বলে প্রতিষ্ঠিত করতে দেখি নাই। লিখতে দেখি নাই পচা রক্তবহন করা, পুঁজময় বারবনিতা পুরুষকে নিয়ে। আফসোস!

এ কেমন নারী জাগরণ, যেখানে নারী মুক্তি, নারীর স্বাধীনতা, নারীর বেঁচে থাকার যুদ্ধ – গল্পে পুরুষের নিশ্চিত নষ্টামির গল্পকে উপেক্ষা করা হয়! সেই পচা গলা থেঁতলে যাওয়া পুরুষকে টেনে হিঁচড়ে বের করে আনার কোনো প্রচেষ্টাই কেউ কখনো করে না! করলে হয়তো এতোদিনে নারীর পাশাপাশি পুরুষকেও নষ্ট পুরুষ বলার নজির সৃষ্টি হতো। অথচ আমি জোর গলায়ই বলতে পারি এসব পুরুষের অভাব নেই আমাদের সমাজে। বরং জরিপে দেখা যাবে নারীরাই হয়তো সংখ্যায় পিছিয়ে।

আমাদের কালো সমাজের দৃষ্টিতে নোংরামিতে ভরপুর পুরুষ এর জন্ম কি নারী জঠরে নয়! যে অন্ধ সমাজ নারী- নষ্টামির ব্যবচ্ছেদ করার সময় নারীর জন্মকে প্রশ্নবিদ্ধ করে, তাদের কাছে জানতে মন চায় নষ্ট পুরুষ এর জন্ম দেয়ার দায়ভার কি নষ্ট নারীর জন্মের মতোই কলুষিত! কেউ কোনোদিন পুরুষকে বলেনি, পুরুষ, তোমার নষ্টামিও কিন্তু কঠিন নজরদারিতে আছে। তোমার নষ্টামি দেখে মনে হয় তনু, আবরার, নুসরাতদের মতো আরো এমন অনেক মূল্যবান প্রাণ কেড়ে নেয়া নিষ্ঠুর ঘাতকদের হাতে তোমাকে তুলে দেই, আর চিৎকার করে বলি, তোমাদের পুরুষ- কাপুরুষোচিত যত শক্তি আছে সব দিয়ে নির্মূল করে দাও নষ্ট পুরুষের নষ্টামি। এরাই তোমাদের নিষ্ঠুরতা আর বর্বরতার যোগ্য শিকার, তোমাদের নৃশংস রক্ত – তৃষ্ণা মেটানোর উপযুক্ত খোরাক। তোমাদের নষ্ট আদালতেই না হয় হোক এই সারমেয় স্বভাবের মানুষরুপি অমানুষদের বিপক্ষে রায়! একপেশে অসৎ সমাজে প্রতিষ্ঠিত হোক “তুই একজন নষ্ট পুরুষ” বলার বিরল দৃষ্টান্ত।

সায়রা
১৬.১০.২০২১

শেয়ার করুন:
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
Copy Protected by Chetan's WP-Copyprotect.