পরিমলের বিরুদ্ধে ওই ছাত্রীর ক্যামেরা ট্রায়াল

Parimolউইমেন চ্যাপ্টার ডেস্ক: ভিকারুন নিসা নূন স্কুলের বসুন্ধরা শাখার শিক্ষক পরিমল জয়ধরের বিরুদ্ধে রুদ্ধদ্বার সাক্ষ্য দিচ্ছেন নির্যাতিতা ছাত্রী।

ঢাকার ৪ নম্বর নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালে এ সাক্ষ্যটি নেয়া হচ্ছে।

বৃহস্পতিবার দুপুর সোয়া ১২টা হতে ভেতর থেকে আদালতের কক্ষ বন্ধ করে দিয়ে সাক্ষ্য নেওয়া হচ্ছে।

এ সময় আদালত কক্ষ থেকে এ মামলার আসামি, আসামির আইনজীবী, ভিকটিম, ভিকটিমের আইনজীবী ও স্পেশাল পাবলিক প্রসিকিউটর ছাড়া আর সবাইকে বের করে দেওয়া হয়।

ভিকাররুন নিসা নূন স্কুল অ্যান্ড কলেজের দশম শ্রেণীর ছাত্রীকে যৌন হয়রানির অভিযোগে ২০১১ সালের ৫ জুলাই বাড্ডা থানায় মামলাটি করেন ওই ছাত্রীর বাবা।

মামলার অভিযোগে বলা হয়, ওই ছাত্রীকে প্রথমে প্রলোভন দেখিয়ে ২০১১ সালের ২৮ মে ধর্ষণ করেন পরিমল। পরবর্তিতে ওই সময়ে ধারণকৃত ভিডিও দেখিয়ে ব্ল্যাকমেইল করে ১৭ জুনও ধর্ষণ করা হয়।

পরবর্তীতে পুলিশ পরিমল জয়ধরকে ২০১১ সালের ৬ জুলাই কেরাণীগঞ্জের তার স্ত্রীর বড় বোনের বাসা থেকে গ্রেফতার করে।

মামলার শুরুতে অভুযুক্ত তিনজন থাকলেও পরে ২০১১ সালের ২৮ নভেম্বর মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের পরিদর্শক মাহবুবে খোদা ভিকারুন নিসা নূন স্কুলের বসুন্ধরা শাখা প্রধান লুৎফর রহমান ও অধ্যক্ষ হোসনে আরা বেগমকে অব্যাহতির সুপারিশ করে শুধুমাত্র পরিমল জয়ধরকে অভিযুক্ত করে আদালতে সম্পূরক চার্জশিট দাখিল করেন।

শেয়ার করুন:
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
Copy Protected by Chetan's WP-Copyprotect.