স্যানিটারি ন্যাপকিনও তবে বের করে দেখান!

নাসরীন রহমান:

ইদানিং ইউটিউব এ একটা ট্রেন্ড লক্ষ্য করা যাচ্ছে, অনেক অভিনেত্রী তাদের ভ্যানিটি ব্যাগ খুলে দেখাচ্ছেন ব্যাগে কী কী আছে!
ব্যাপারটা এমন, নারীর ভ্যানিটি ব্যাগে কী কী থাকতে পারে বা থাকে তার একটা প্রদর্শন!

আমি নিজেও কৌতুহলবশত কয়েকটি লিংক দেখেছি, দেখা যায় সেখানে অভিনেত্রী খুব আনন্দের সাথে একে একে তার ভ্যানিটি ব্যাগ থেকে বের করছেন লিপস্টিক, লুকিং গ্লাস, পারফিউম, চাবির রিং ইত্যাদি ইত্যাদি।

এসব লিংক যে ইউটিউব ইউজারদের ব্যাপক বিনোদন দিচ্ছে তা বলার অপেক্ষা রাখে না। লিংক এর নিচের কমেন্ট পড়লেও তা আঁচ করা যায়। অভিনেত্রী-অভিনেতারা তো অনেক কিছুই করেন আর তা অন্ধভাবে অনুসরণ করেন তাঁদের অনেক ভক্ত।

যাহোক মূলকথায় আসা যাক, ভ্যানিটি ব্যাগ নারীর ফ্যাশন অনুষঙ্গ সেইসাথে প্রয়োজনীয়ও। একজন নারী তার ব্যক্তিগত অনেক কিছুই রাখেন ভ্যানিটি ব্যাগে; কর্মব্যস্ত নারীদের কাছে তো আরও প্রয়োজনীয় এই ভ্যানিটি ব্যাগ।

তাঁরা প্রতিদিনের ব্যবহৃত টুকটাক এই ব্যাগে রাখেন, যাহোক সেই প্রসঙ্গ ভিন্ন। আমার বক্তব্য ব্যাগ নয় ; ব্যাগের ভেতরকার জিনিস নিয়ে।

আমরা জানি নারীর আরেকটি বহু প্রয়োজনীয় জিনিস, স্যানিটারি ন্যাপকিন’…প্রায় প্রত্যেক নারীর ব্যাগে এই দরকারি জিনিসটি পাওয়া যাবে। আমরা নিজেরাও বিশেষকরে স্কুল, কলেজ, বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়ার সময় অতি যত্নে একটি স্যানিটারি ন্যাপকিন টিস্যুতে মুড়ে ব্যাগের এককোনায় রেখে দিতাম যাতে অনাকাঙ্ক্ষিত পরিস্থিতি এড়াতে পারি।

পিরিয়ডের ডেট কাছাকাছি থাকুক বা না থাকুক মেয়েরা এই স্যানিটারি ন্যাপকিন ব্যাগে রাখেনই প্রয়োজনীয় মুহূর্তে সুরক্ষার জন্য। আমার কথা হচ্ছে এই যে অভিনেত্রীরা তাদের ভ্যানিটি ব্যাগ খুলে খুলে দেখাচ্ছেন, তারা কেন সৎ সাহস পেলেন না স্যানিটারি ন্যাপকিন দেখানোর?
তাদের ভ্যানিটি ব্যাগ দেখানোর উদ্দেশ্যই যদি থাকে ব্যাগের জিনিস দেখানো, তবে স্যানিটারি ন্যাপকিন কী দোষে দোষী?

তাঁরা এটা এড়িয়ে গেলেন কেন?
কেননা অন্যান্য জিনিস এর মতো স্যানিটারি ন্যাপকিনও অবশ্যই নারীর ব্যাগে রাখার জন্য দরকারি জিনিস।
তারা কি ভয় পান সমাজের চোখকে?
বিশেষত এই সময়ে এসে এখনও যখন নারীর ঋতুস্রাব হলে তাঁকে রান্নাঘরে ঢুকতে দেওয়া হয় না, ঋতুস্রাব হলে নারীকে অপবিত্র ভাবা হয়, তখন ভ্যানিটি ব্যাগ খোলার প্রদর্শনে সবার আগে বের করা উচিত ছিল স্যানিটারি ন্যাপকিন।

সমাজের চোখে আঙুল দিয়ে বুঝিয়ে দেওয়া উচিত ছিল, তোমরা নারীকে নিয়ে ভোগে মত্ত হতে পারো অথচ নারী রজ:স্বলা হলে তোমাদের এতো ঘেন্না!

প্রত্যেকেরই সমাজের প্রতি দায়বদ্ধতা আছে, সেখানে সমাজে যারা প্রতিষ্ঠিত তাদের আরও বেশি।

তাই পরিশেষে বলতে চাই, আপনাদের ভ্যানিটি ব্যাগই যদি দেখাচ্ছেন তবে স্যানিটারি ন্যাপকিনও বের করে দেখান; এতে লজ্জা নেই। ঋতুস্রাব নারীর শরীরের স্বাভাবিক একটি প্রক্রিয়া।

শেয়ার করুন:
  • 35
  •  
  •  
  •  
  •  
    35
    Shares
Copy Protected by Chetan's WP-Copyprotect.