রানু যখন নিজেই একটা ব্র্যান্ড!

মনজুন নাহার:

আশা আছে এখনও! পথে খেতে একটা হোটেলে ঢুকলাম। উপরে চোখ পড়তেই দেখলাম প্রপ্রাইটার রানু, ভিআইপি হোটেল! দেখেই ভিতরে একটা চাপা উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়লো!

এতো মানুষ খাচ্ছে আর এই গ্রাম অঞ্চলে রানু তার হোটেল ২৪ ঘন্টা চালিয়ে যাচ্ছে। নারী আর পুরুষ কর্মী রয়েছে অনেকজন! জিজ্ঞাসা করলাম প্রতিদিন কত জন খায়? উত্তর এলো ৪০০ জন তো হবেই! এতো দেখি একটা ইন্ডাস্ট্রি! আসলে সব কিছুর ব্র্যান্ড লাগে না!

রানু নিজেই যেন একজন ব্র‍্যান্ড অ্যাম্বাসেডর! আমাদের সকলের! শহুরে সংস্কৃতিতে যখন হিজাবের আগ্রাসন, আর ধর্ম যেখানে মানুষের পরিচয়ের মূলভিত্তি. সেখানে মফস্বলের চার রাস্তার মোড়ে রেনু চালিয়ে যাচ্ছে তার রাত-দিনের হোটেল।

জীবন তাকে শিখিয়েছে মানুষ হয়ে মাথা তুলে বাঁচাটাই বড়! আর সব তুচ্ছ এবং মেকি!

জয় হোক রানু আপনার!

উইমেন চ্যাপ্টারের পক্ষ থেকে রানুর প্রতি রইলো ভালবাসা আর অভিনন্দন।

 

শেয়ার করুন:
  • 121
  •  
  •  
  •  
  •  
    121
    Shares
Copy Protected by Chetan's WP-Copyprotect.