ত্বকী হত্যা মামলায় আবারও রিমান্ডে লিটন

tokiউইমেন চ্যাপ্টার ডেস্ক: তানভীর মুহাম্মদ ত্বকী হত্যা মামলায় স্থানীয় সাবেক সাংসদ নাসিম ওসমানের ছেলে আজমেরী ওসমানের ঘনিষ্ঠ সহযোগী ইউসুফ হোসেন ওরফে লিটনকে আবারও সাত দিনের রিমান্ডে নেওয়া হয়েছে।

পুনরায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ১২ দিনের রিমান্ড আবেদন করে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব)। আবেদনের প্রেক্ষিতে শুনানি শেষে নারায়ণগঞ্জ মুখ্য বিচারিক হাকিম যাবিদ হোসেন সাত দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করে।

র‌্যাব-১১-এর স্পেশাল ক্রাইম প্রিভেনশন কোম্পানির এএসপি রবিউল ইসলাম জানান, ত্বকী হত্যাকাণ্ডের বিষয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করতেই লিটনকে রিমান্ডে নেওয়া হয়েছে।

ত্বকী হত্যার ঘটনায় লিটনকে গ্রেপ্তার করা হয়ে গত এপ্রিলে। সে সময়ে রিমান্ডে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করা হলেও আদালতে কোন জবানবন্দি দেয়নি লিটন। এরপর গত ১৫ জুলাই উচ্চ আদালত থেকে তিনি জামিনে মুক্তি পান।

জামিনের পর থেকেই নিখোঁজ লিটন গত ২৯ জুলাই মাদকসহ আবারও গ্রেপ্তার হন। পরদিন ৩০ জুলাই তিনি আদালতে ১৬৪ ধারায় ত্বকী হত্যার ঘটনায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেন।

গত ৬ মার্চ নিখোঁজের দুই দিন পর ৮ মার্চ নারায়ণগঞ্জ শহরের চারারগোপ এলাকায় শীতলক্ষ্যা নদীর কুমুদিনী খাল থেকে ত্বকীর লাশ উদ্ধার করা হয়।

এই ঘটনায় ত্বকীর বাবা নারায়নগঞ্জের বিশিষ্ট সাংষ্কৃতিক ব্যাক্তিত্ব রফিউর রাব্বি নারায়ণগঞ্জ সদর মডেল থানায় হত্যা মামলা করেন।

পুলিশ এ হত্যা মামলায় সাবেক সাংসদ আওয়ামী লীগের নেতা শামীম ওসমানের ছেলে অয়ন ওসমানের ঘনিষ্ঠ সহযোগী রিফাত বিন ওসমান, সালেহ রহমান সীমান্ত ও লিটনকে গ্রেপ্তার করে।

পরবর্তিতে ত্বকীর বাবা শামীম ওসমান, তাঁর ছেলে অয়ন ওসমান, জেলা যুবলীগের বহিষ্কৃত প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক জহিরুল ইসলাম ভূঁইয়া পারভেজ ওরফে ক্যাঙ্গারু পারভেজসহ ছয়জনকে অভিযুক্ত জেলা পুলিশ সুপারকে অবগতি পত্র প্রদান করেন।

শেয়ার করুন:
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
Copy Protected by Chetan's WP-Copyprotect.