নাফ নদীতে মিয়ানমারের রণতরী!

battle shipউইমেন চ্যাপ্টার ডেস্ক (২৬ জুলাই): বাংলাদেশের টেকনাফ সীমান্তে নাফ নদীতে অবস্থান নিয়েছে মিয়ানমারের একটি যুদ্ধজাহাজ। তবে এ ব্যাপারে ভয়ের কিছু নেই বলে জানিয়েছেন বিজিবি ৪২ ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লেফটেনেন্ট কর্নেল জাহিদ হাসান।

শুক্রবার বিডিনিউজ24 এক প্রতিবেদনে একথা জানানো হয়েছে। প্রতিবেদনে বলা হয়, অন্তর্বর্তীকালীন সময়ে নিরাপত্তার দায়িত্ব পালনের জন্য নৌবাহিনীর যুদ্ধজাহাজ ৫৫৪ নাফ নদীতে পাঠায় মিয়ানমার সরকার।

মিয়ানমার সরকার নাসাকা বাহিনীকে বিলুপ্ত করে আপাতত নিরাপত্তার দায়িত্ব পালনের জন্য বাংলাদেশ সরকার ও নৌবাহিনীকে জানিয়েই মিয়ানমার নৌবাহিনী ওই জাহাজ পাঠিয়েছে। এ নিয়ে কোন উত্তেজনা সীমান্তে নেই বলেও জানিয়েছেন বিজিবি কর্মকর্তা।

রোহিঙ্গা ও মুসলিমদের উপর নাসাকাদের বর্বর নির্যাতনের প্রেক্ষিতে জাতিসংঘের চাপের মুখে মিয়ানমার তাদের সীমান্ত রক্ষার দায়িত্বে থাকা নাসাকা বাহিনীকে বিলুপ্ত ঘোষণা করে। নাসাকার সকল সদস্যকে টেকনাফ সীমান্ত থেকে সরিয়ে নেয়া হয়। এর ফলে অরক্ষিত সীমান্তে নতুন সীমান্তরক্ষা বাহিনী আসার পূর্ব পর্যন্ত জাহাজটি সীমান্তরক্ষার দায়িত্ব পালন করবে।

বিজিবি কর্মকর্তারা জানান, ওই সময় থেকেই জাহাজটি নাফ নদীর মংদু খালে অবস্থান করছে।

দীর্ঘ সময় সীমান্তে যুদ্ধজাহাজ অবস্থানের কারণে এলাকায় গুঞ্জন তৈরি হয়েছে বলে প্রতিবেদনে বলা হয়।

শেয়ার করুন:
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
Copy Protected by Chetan's WP-Copyprotect.