পাকা জহুরী দাউদ হায়দার

0

সেরীন ফেরদৌস:

দাউদ হায়দার কেন এরকম একটি রোষমূলক কবিতা প্রকাশ করে নিজেকে হেয় করলেন অবেলায়! এতোকাল নানারকম গদ্য-পদ্য লিখে যে একটা জায়গা তৈরি করেছিলেন, এক লহমায় সেটা সরে গিয়ে আসল মুখটা যেন বেরিয়ে পড়লো! তিনি এভাবেও মুখ খারাপ করতে পারেন!

আমি মুচকি হাসলামও, যাদেরকে গালি দিয়েছেন, এই গালি তাদের গায়ে লাগে! বরং বাদবাকি সবাই দেখলো, কবিতাটি আগাগোড়া পড়ার অযোগ্য, কুৎসাময়। নারীবাদীদের তিনি ‘ছিনাল’ বলে গালি দিয়েছেন, একজনকে ‘সেরা ছিনাল’ বলে ঘোষণা করেছেন। তিনি স্বীকার করেছেন ছোট, বড়, মাঝারি, অখ্যাত-বিখ্যাত সকল পদের ছিনাল দেখার কাজ সারা করেছেন। ছিনালরা সারাদিন কী কী করে, কাদের পেটে জন্মায়, কোন কোন অবোধ শিশুরা ছিনালের চক্করে পড়ে দিশেহারা হচ্ছে, ইত্যকার বিষয়ে তিনি একটি পদ্য প্রসব করেছেন! একেই কি বলে পাকা জহুুরী!

তো, বুঝতে পারলাম যে, তিনি নারীবাদীদের পেছনে অনেকটা সময় ব্যয় করার পর বুঝতে পেরেছেন তারা কী বস্তু! তিনি নিজে কী! এতো ছিনালচেনা লোকটা নিজেকে কী নামে ডাকবেন?

তাঁকে ধন্যবাদ যে, তাঁর আসল চেহারা তিনি প্রকাশ করলেন। এতে আশা করি নারীবাদীরা কিছুটা খুশিই হবেন! কারণ, দাউদ হায়দারের নাম উল্লেখ করে কোনো নারীবাদী মুখ খুললে তিনি এবং তিনার সতীর্থরা ঝামেলায় পড়ে যেতেন! বলা যায় না, মামলা-মানহানি ইত্যাদির হুমকিও দিতে পারতেন!

না-কি কোনো নারীবাদীর কাছ থেকে সেই সম্ভাবনা তৈরি হওয়াতে আগেভাগেই তিনি ঘোষণা দিয়ে বসলেন! বুঝলাম না, বাংলার কবি-লেখকদের দুর্গ একের পর এক যেভাবে ধসে পড়ছে, বেজে উঠলো কি তবে সময়ের ঘড়ি!

লেখাটি ভাল লাগলে শেয়ার করুন:
  • 245
  •  
  •  
  • 2
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    247
    Shares

লেখাটি ১,৩৬১ বার পড়া হয়েছে


উইমেন চ্যাপ্টারে প্রকাশিত সব লেখা লেখকের নিজস্ব মতামত। এই সংক্রান্ত কোনো ধরনের দায় উইমেন চ্যাপ্টার বহন করবে না। উইমেন চ্যাপ্টার এর কোনো লেখা কেউ বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করতে পারবেন না।

Copy Protected by Chetan's WP-Copyprotect.