রূপার কেসটা ‘জাতীয় পর্যায়ের’ হলো না

0

সুদীপ্তা ভট্টাচার্য্য রুমকি:

হুম এবার রুপা….Justice for তো লেখাই আছে, সাথে Rupa বলবেন কি না ভাবছেন? একটু wait করেন, দেখেন ওর লাশটা কোন পর্যায়ের জনপ্রিয়তা পেয়েছে, জেলা, বিভাগীয় না জাতীয় পর্যায়ে? আপনারা তো আবার গড়পড়তা সব নির্যাতিত, নিপীড়িত মেয়েদের জন্য Justice for কথাটা বলতে পারবেন না। এর জন্য তাকে নির্যাতিত হয়ে সহ্য করতে না পেরে হয় আত্মহত্যা করতে হবে, নয়তো খুন হতে হবে, তাতেও কিন্তু হবে না। এবার দেখতে হবে কতটা জনপ্রিয়তা পায় তার লাশ।

যদি জাতীয় পর্যায়ে জনপ্রিয়তা পেয়ে যায়, তাহলে অবশ্যই বলতে হবে Justice for Rupa…আপনারা যে শিক্ষিত, সুশীল সমাজের অংশ তার প্রমাণ তো দিতে হবে। বিষয়টা যদিও অনেকটাই বিত্তবান মূর্খের ঘরের লাইব্রেরির মতো, সে নিজে কিছুই পড়তে পারছে না, কিন্তু যেহেতু শিক্ষিত মানুষের ঘরে থাকে তাই তারই বা থাকবে না কেন!

আর যদি ঘটনাটা জনপ্রিয় না হয়, তাহলে তো কোন দায়ই নেই, ঝারা হাত-পা নিয়ে বরং আপনাদের সুখের ধারা কোনদিক দিয়ে কীভাবে বেয়ে পড়ছে তার উপযুক্ত প্রমাণ ফেসবুকে দাখিল করুন। কার মেয়ে, কার বোনের কী হলো ভেবে সময় কোথায় সময় নষ্ট করবার! মেয়েটি তো আর আপনাদের কেউ নয়।

কিন্তু বিশ্বাস করুন আর না করুন, এই বিভীষিকার ধারাবাহিকতায় একদিন আপনার কন্যাও এই অবস্থার সম্মুখীন হয়ে যেতে পারে, সেদিন কিন্তু কান্নার পালা আপনার। সেদিন যে সুশীল সমাজের অংশ হয়ে আপনি নিশ্চুপ ছিলেন, সেই সুশীল সমাজ আপনার বেলায়ও নিশ্চুপই থাকবে।

অন্যায় হচ্ছে দেখেও অন্ধ হয়ে থাকলে, শুনেও বধির হয়ে থাকার ফল আপনাকেও কোন না কোনদিন, কোন না কোন ভাবে হয়তো ভোগ করতে হবে। অপরাধ এমনি এমনি বাড়ে না, তার কিছু কারণও থাকে। Charity begins at home। নিজের ঘরের দিকে তাকান, আশপাশে তাকান, দেখুন কেউ পারিবারিকভাবে, সামাজিক ভাবে নির্যাতনের শিকার হচ্ছে কি না, হলে তার পাশে দাঁড়ান। ঘর পরিষ্কার হলে এলাকা, এলাকা হলে শহর, আর শহর পরিষ্কার হলে তবে পুরো দেশ পরিষ্কারের দিকে নজর দিন।

একটা কথা ঘরের ভিতর ময়লা রেখে উঠোন ঝারলে যেমন কোন লাভ হয় না, ময়লার জায়গায় ময়লা ঠিকই থেকে যায়, ঠিক তেমনি অন্যায়কারী নিজের ঘরে, আশেপাশে রেখে বাইরের একজন-দুইজন চিহ্নিত করেও কোন লাভ হবে না অপরাধ ঠিকই সংঘটিত হবে। নির্যাতনকারী নিজের কেউ হলেও বন্ধু তুমি এগিয়ে চল আমরা আছি তোমার পাশে এই ভাবনা থেকে বেরিয়ে আসুন।

অন্যায় কে অন্যায় আর অপরাধী কে অপরাধী বলতে শিখুন। তা না হলে তার অপরাধের দায় আপনিও কিন্তু এড়াতে পারবেন না। একটু নিজের বিবেককে জাগ্রত করুন, সেদিন আর Justice Justice বলে কিছু মানুষের বুকফাটা আর্তনাদ করতে হবে না JUSTICE এমনিতেই আসবে।

লেখাটি ভাল লাগলে শেয়ার করুন:
  •  
  •  
  •  
  • 2
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    2
    Shares

লেখাটি ১,১৩০ বার পড়া হয়েছে


উইমেন চ্যাপ্টারে প্রকাশিত সব লেখা লেখকের নিজস্ব মতামত। এই সংক্রান্ত কোনো ধরনের দায় উইমেন চ্যাপ্টার বহন করবে না। উইমেন চ্যাপ্টার এর কোনো লেখা কেউ বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করতে পারবেন না।

Copy Protected by Chetan's WP-Copyprotect.