‘পুরুষ ছাড়া নারীর বাজারে যাওয়া নিষিদ্ধ’

উইমেন চ্যাপ্টার ডেস্ক: পাকিস্তানের উত্তরপূর্বাঞ্চলীয় খাইবার পাখতুনখাওয়া প্রদেশের আফগান সীমান্তবর্তী একটি এলাকায় পুরুষ নিকটাত্মীয় ছাড়া নারীদের বাজারে যাওয়া নিষিদ্ধ করেছেন স্থানীয় উপজাতি ও ধর্মীয় নেতারা। সম্প্রতি আফগানিস্তানের একটি এলাকায়ও নারীদের ওপর একই ধরনের বিধিনিষেধ আরোপ করা হয়।

শনিবার বিবিসির এক প্রতিবেদনের বরাত দিয়ে একটি অনলাইন পত্রিকায় বলা হয়, খাইবার পাখতুনখাওয়ার কারাক জেলায় একটি মসজিদে বৈঠকে বসে এই সিদ্ধান্ত নেন উপজাতি ও ধর্মীয় নেতারা। এরপর মসজিদের মাইকে তা ঘোষণা করা হয়। এ সিদ্ধান্ত বাস্তবায়নে স্থানীয় পুলিশ প্রশাসনের সহায়তাও চাওয়া হয়।

মাওলানা মির্জাকিম নামের স্থানীয় এক ধর্মীয় নেতা বলেছেন, “আমরা সিদ্ধান্ত নিয়েছি যে, একজন পুরুষ আত্মীয় ছাড়া কোনো নারী বাজারে যাবে না।”

“পুরুষ আত্মীয় ছাড়া যারা বাজারে যাবে তাদের পুলিশের কাছে হস্তান্তর করা হবে।”

একাকী বাজারে যাওয়া নারীদের কাছে পণ্য বিক্রি না করার জন্য দোকানদারদেরও বলা হয়েছে বলে জানান তিনি। মির্জাকিম বলেন, এতে করে নারীরা অশ্লীলতা ছড়ায় এবং তাতে রমজানে পুরুষদের রোজা নষ্ট হয়।

তবে রোজা শেষে এই নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করা হবে কি না সে বিষয়ে কিছু বলেননি ধর্মীয় নেতারা।

প্রতিবেশী দেশ আফগানিস্তানের বাঘলান প্রদেশের দেহ সালাহ এলাকায় গত মাসের শেষ দিকে একটি ফতোয়া জারি করেন স্থানীয় ধর্মীয় নেতারা।

তাতে পুরুষ আত্মীয়কে সঙ্গে নেয়া ছাড়া নারীদের বাইরে বের হওয়া নিষিদ্ধ ঘোষণা করা হয়। পাশাপাশি স্থানীয় প্রসাধন সামগ্রীর দোকানগুলো বন্ধ করে দেয়ার কথা বলা হয়। এসব দোকান ‘পতিতাবৃত্তির কাজে’ ব্যবহার করা হচ্ছে বলে মন্তব্য করেন ওই ধর্মীয় নেতারা।

(বিডিনিউজ২৪ থেকে নেয়া)

শেয়ার করুন:
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
Copy Protected by Chetan's WP-Copyprotect.