আমার কাউকে কিছু বলার নেই

শাশ্বতী বিপ্লব:

আজ আমার আসলে কাউকে কিছু বলার নেই।

ক্রিকেট বিজয় আনন্দের নিঃসন্দেহে, মানুষ আনন্দ করবেই। আমি কাউকে সে আনন্দ নিষেধ করতে পারি না। আর যে ছেলেগুলো কষ্ট করে খেলে জিতলো, তাদেরও অভিনন্দন প্রাপ্য।

সামনে ঈদ। আছে ঘরে ফেরার আনন্দ। আছে কোরবানির উৎসব। এই আনন্দের দিকে চেয়ে থাকা মানুষগুলোকে আমি শোক করতে বলতে পারি না।

দেশ ভেসে যায় বানে। বানভাসী মানুষের কাছ ছুটে যাবে বিবেকবান মানুষেরা। ওদের পাশে দাঁড়ানো দরকার। আমি বানভাসী মানষের দুর্দশাকে উপেক্ষা করতে পারি না।

সীমান্তে অপেক্ষমান দলে দলে শরণার্থী। পানিতে মৃত শিশুর লাশ ভাসে। তাদের আর্তনাদকেও আমি উপেক্ষা করতে পারি না। শান্তির পায়রাটাকে বলতে পারি না, সবার উপরে মানুষ সত্য, তাহার উপরে নাই। নোবেল পুরস্কারের কপালে কষে একটা লাথি মারতে পারি না।

বাজারে দামের ঊর্ধ্বগতি বা বাসে ট্রেনে টিকেটের দুষ্প্রাপ্যতা নিয়ে মানুষ বিচলিত। আমি তাদের সেই বিচলিত হওয়াকে অস্বীকার করতে পারি না।

কোথাও কোন এক রূপা মরে গেলে সেই যন্ত্রণা সইতে না পেরে রূপার মা বারবার জ্ঞান হারালে, আমি তাকে সহ্য শক্তি বাড়াতে বলতে পারি না। বলতে পারি না, এমনি কতো রূপাই তো ধর্ষিত হয়, খুন হয় প্রতিদিন। মেনে নিন।

রূপারা প্রয়োজনে, অপ্রয়োজনে বাইরে যাবে, বাসে ট্রেনে চড়বে। আমি রূপাদের ঘরে বন্দী থাকতে বলতে পারি না। বলতে পারি না, তেঁতুল হুজুরের কথা মেনে নাও।

কোন প্রকাশ্য বা গোপন ধর্ষককে আমি বলতে পারি না, রূপা তোর মা নয়, বোন নয়, কন্যা নয়, কেউ নয়। রূপা যেকোনো একজন মানুষ। তবু রূপাদের ধর্ষণ করা যাবে না। বলতে পারি না, শুধু মানুষের মতো দেখতে হলেই কেন মানুষ হওয়া যায় না। কেন তারা ভাদ্র মাসের কুকুরেরও অধম।

কোন বামাতি সেলিব্রিটি ও তার সমর্থকদের বুঝিয়ে বলতে পারি না, নারীর অধিকার আদায়ের আন্দোলনটা কতটা কন্টকাকীর্ণ। থার্ড ওয়েভ নারীবাদ কোন যৌন স্বাধীনতার কথা বলে!

দুর্যোগে নারীর ধর্ষণের ঘটনায় সন্দেহকারীদের বলতে পারি না, আক্রান্ত এলাকায় গিয়ে দেখুন কেন দুর্যোগে নারী বিশেষভাবে অনিরাপদ! কাদের কাছে অনিরাপদ!

আমি বলতে পারি না, নারী মানে শুধু শরীর নয়। তবুও শুধুমাত্র বিশেষ শারীরিক বৈশিষ্ট্যের কারণে পুরুষের কাছে নারীর শিক্ষা, যোগ্যতা কতটা হাস্যকর। কতটা মূল্যহীন।

আমার লেখার স্ক্রিনশট নিয়ে মাতম তোলা পুরুষদের বা লেখার নিচে ধর্ষণের ইচ্ছা প্রকাশ করা পুরুষদের বলতে পারি না, একবার রূপার জায়গায় নিজেকে বসিয়ে দেখো কতটা অসহায়ত্ব, কতটা আতঙ্ক, কতটা যন্ত্রণা এই নারীত্বের।

ভালো পুরুষদের বলতে পারি না একবার আয়নার সামনে দাঁড়িয়ে নিজেকে প্রশ্ন করো। শুধুমাত্র পুরুষ বলে জাত ভাইদের অন্যায়ের সাফাই তুমি গাইতে পারো না।

কিছু নারী পুরুষ এসব দেখে ক্ষেপে গেলে, তীব্র ক্ষোভ ও ঘৃণা প্রকাশ করলে, আমি তাদেরও আইনের উপর, রাষ্ট্রের উপর ভরসা রাখতে বলতে পারি না।

বিচারের দাবী? না, আমি তাও করবো না। যে বিচার আমার এমনিতেই প্রাপ্য, সে বিচার আমি চেয়ে নিতে পারবো না।

আমি আদতে এক অক্ষম মানুষ। সারাদিন ভেবেছি। সারাদিন নিজের অক্ষমতাগুলোকে সাথে নিয়ে নেড়েচেড়ে দেখেছি। আমার আসলে কোনো ক্ষমতাই নেই।

শুধু যদি কখনো পারি, কখনো যদি একবার সুযোগ পাই, অন্তত একটা মানুষরূপী ভাদ্র মাসের কুকুরকে মেরে ফেলতে চাই। স্রেফ ঘাড় মটকে, মাথা থেঁতলে মেরে ফেলতে চাই।

আমার কাউকে আর কিছু বলার নেই।

শেয়ার করুন:
  • 365
  •  
  •  
  •  
  •  
    365
    Shares
Copy Protected by Chetan's WP-Copyprotect.