রাজাকার খোকনকে গ্রেফতারের আদেশ

rajakar kokhonউইমেন চ্যাপ্টার ডেস্ক: ‘আমি রাজাকার ছিলাম, আছি, রাজাকার হিসেবেই মৃত্যুবরণ করতে চাই’। এভাবেই একসময় দম্ভ প্রকাশকারী ফরিদপুরের স্ব-ঘোষিত সেই রাজাকার জাহিদ হোসেন ওরফে খোকনকে গ্রেফতারের আদেশ দিয়েছে আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল-১।

বর্তমানে নগরকান্দার পৌর মেয়র বিএনপি নেতা জাহিদ হোসেন খোকন ওরফে খোকন রাজাকারের বিরুদ্ধে প্রসিকিউশানের অভিযোগ আমলে নিয়ে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করেছে বিচারপতি এটিএম ফজলে কবীর নেতৃত্বাধীন এই ট্রাইবুনাল।

রাজাকার খোকনের বিরুদ্ধে হত্যা, গণহত্যা, ধর্ষণের, অগ্নিসংযোগ, জোরপূর্বক ধর্মান্তরিত করা সহ ১১ টি অভিযোগ আনা হয়েছে।

গত ২৩ জুন ট্রাইব্যুনালের রেজিস্ট্রারের কাছে এই আনুষ্ঠানিক অভিযোগ জমা দেয় প্রসিকিউশন।

আগামী ৩০ জুলাই এ মামলার অভিযোগের কপি ও অন্যান্য নথি ট্রাইব্যুনালে দাখিল করারও নির্দেশ দিয়েছে ট্রাইবুনাল।

ট্রাইব্যুনালের তদন্ত সংস্থা বলছে, ১৯৭০ সালের জাতীয় নির্বাচনে খোকন জামায়াতের প্রার্থীর পক্ষে বৃহত্তর ফরিদপুর এলাকায় প্রচার চালান। পরে তিনি বিএনপির রাজনীতিতে জড়ান এবং নগরকান্দা পৌর কমিটির সহ-সভাপতি হন।

এদিকে গ্রেফতারের আদেশ জারি করলেও ২০১১ সালে তিনি নগরকান্দা মেয়র হিসেবে শপথ নেয়ার পর থেকেই তিনি পলাতক।

শেয়ার করুন:
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
Copy Protected by Chetan's WP-Copyprotect.