পোশাকের নারী, নারীর পোশাক

0
তানিয়া কামরুন নাহার:
পোশাক জিনিসটার সাথে ভূগোলের খুব ভালো সম্পর্ক আছে। ভৌগলিক অবস্থান, সূর্যালোক প্রাপ্তি, পৃথিবীর ঘূর্ণন ইত্যাদি কারণে জন্য একেক অঞ্চলের রোদ, জল, ঝড়, বৃষ্টি, জলবায়ু একেক রকম। আবহাওয়া ও জলবায়ুর কারণে একেক অঞ্চলের মানুষের কাজের ধরনও একেক রকম।
পেশার রকমফেরের জন্য অঞ্চলভেদে খাদ্যের ধরন আলাদা, উৎসবের ধরন আলাদা, সংস্কৃতি আলাদা, আলাদা পোশাক। তাই যতই অক্ষাংশ দ্রাঘিমাংশ পালটে যায়, পোশাকের রঙ, উপাদান, বুনন পালটে যায়। সেই মেরু অঞ্চলের এস্কিমোদের পোশাক আর মরুভূমির বেদুইনদের পোশাক সংগত কারণেই এক নয়। পোশাকের এই বৈচিত্র্য দারুণ লাগে আমার। 
তবে একটা ব্যাপার খেয়াল করে দেখলাম, প্রায় সব অঞ্চলেই নারীদের পোশাক একটু বেশি ঝামেলাটিক। যেমন জাপানের কিমানো, মেয়েদেরটাতে ১২ টুকরা কাপড়, ওজন ২০ কেজি পর্যন্তও হতে পারে। এই পোশাক পরা সময়সাপেক্ষ, পরে সহজভাবে হাঁটাচলাও কষ্টসাধ্য। অপরদিকে পুরুষদের কিমানোতে মাত্র ৫ টুকরা কাপড়, হালকা ওজন, পরতে সহজ, হাঁটাচলাও সহজ। 
একটু অতীতের পাশ্চাত্যের পোশাকগুলো যদি দেখি, তবে মেয়েদের পোশাকগুলো পুরুষদের চেয়ে তুলনামূলক বেশি ভারী। আফ্রিকান পোশাকগুলো এত রেশমি আর ভারী যে, দেখলেই আমার গরম লাগে। মরুভূমির ধুলাবালি আর তীব্র রোদ থেকে রক্ষা পাবার জন্য মধ্যপ্রাচ্যের সবাই দীর্ঘ, মাথামুখ ঢাকা পোশাক পরে। আফ্রিকা বা মধ্যপ্রাচ্যের আবহাওয়ার জন্য কিন্তু অমন পোশাকই উপযুক্ত।
উপমহাদেশেও নারীদের পোশাক দীর্ঘ, পরাটাও সময় সাপেক্ষ। পুরুষদেরও ধুতি নামক জটিল পোশাক রয়েছে, কিন্তু তা নারীদের শাড়ির মতো এতো জটিল নয়, আমার ধারণা। এছাড়াও পুরুষদের আছে প্রিয় ও আরামদায়ক পোশাক লুংগি। এটাকে যে কত সহজ, এ নিয়ে আর কিছু বলবো না। অনেক দেশে অবশ্য মেয়েরাও লুংগি পরে। 
এসব পোশাক দেখে আমার শুধু এটাই মনে হয়, সব অঞ্চলের মেয়েদের ঐতিহ্যবাহী পোশাকগুলো কিন্তু বেশ জটিল। এর মানে হচ্ছে, মেয়েরা তোমরা ঘরে থাকো, বাইরে বের হতে গেলেই পায়ে পায়ে কাপড় জড়িয়ে যাবে, সহজে হাঁটা যাবে না। এক পোশাক পরতেই চলে যায় কত সময়! কত মেয়ে যে শাড়ি/ বোরখায় পা জড়িয়ে গিয়ে পড়ে যায়, পড়তে পড়তে সামলে নেয়। ওরনা/আঁচল রিক্সায় জড়িয়ে দূর্ঘটনায় পড়ে!  হাইহিল নামক জিনিসটা নিয়ে আর না বলি! 
কান উৎসবে বারবি ডলের মত নীল ও ভারী পোশাক পরা ঐশ্বরিয়া রায়কে যতই সুন্দর লাগুক, ঐ পোশাক পরে স্বচ্ছন্দে হাঁটা যায় না। আরো দু/চারজন লাগে ঐ পোশাক ধরতে। এরকম ফ্যাশনেবল পোশাক পরে নিজে নিজে হাঁটতে গিয়ে রূপালী পর্দার তারকারা প্রায় সময় হোঁচট খেয়ে পড়ে যায়। আমরা তো শুধু তাদের হাসিমুখের ছবিটাই দেখি।
 মেয়েদের পোশাক পরা, সাজগোজ করতে দেরি হওয়া নিয়ে পুরুষ মহলে কৌতুক তো কম নেই! 
তবুও #loveforbangladeshisharees
লেখাটি ভাল লাগলে শেয়ার করুন:
  •  
  •  
  •  
  • 2
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    2
    Shares

লেখাটি ৮৪০ বার পড়া হয়েছে


উইমেন চ্যাপ্টারে প্রকাশিত সব লেখা লেখকের নিজস্ব মতামত। এই সংক্রান্ত কোনো ধরনের দায় উইমেন চ্যাপ্টার বহন করবে না। উইমেন চ্যাপ্টার এর কোনো লেখা কেউ বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করতে পারবেন না।

Copy Protected by Chetan's WP-Copyprotect.