মানবতার মৃত্যু!

tania morrshed
তানিয়া মোরশেদ

তানিয়া মোরশেদ: চব্বিশ ঘন্টা আগে আশংকা তৈরি হয়েছিল। কিছু মানুষ বলছিলেন, ফাঁসি নাও হতে পারে। যুক্তরাষ্ট্রের কূটনীতিকের বাসায় আওয়ামী লীগের আর জামাতিদের মোলাকাত। মানে তখনই বোঝা যায়। তবুও ভাবনা, এতদূর নামবে? চব্বিশ ঘন্টা পর উদ্বেগ নিয়ে টিভির সামনে বসে আছি, অনেক রাত তবুও ছেলে ঘুমাতে যাচ্ছে না। বললো, “তুমি তো ল্যাপটপে, আমি একটু উয়িতে খেলি?” আমার উত্তর,” না টিভিতে যে কোনো সময় রায় শোনা/দেখা যাবে।” তার উত্তর, “আমার আজকে খেলতে হবে না।” বললাম, ঘুমাতে যাও। না আমি তোমার সাথে থাকি। কিছুক্ষণ পর আমার দিকে তাকিয়ে জিজ্ঞাসা, “কি হয়েছে?” উত্তর, “ফাঁসি হয়নি!” না আমি চিৎকার দেইনি, কেঁদে উঠিনি ………।

সে আমায় জড়িয়ে ধরে থাকলো। কিছুক্ষণ পর পানি এনে দিলো। আর কিছু লাগবে কিনা জিজ্ঞাসা করলো। বেশ কিছু সময় পর বললাম যে তুমি ঘুমাতে যাও। আজ আমার ঘুম হবে না। সে বললো, “তুমি উপরের ঘরে চল। ওখানে শুয়ে শুয়ে টিভি দেখবে, আমি তোমার পাশে ঘুমাবো। তোমার কিছুটা রেস্ট হবে।” ……………… রাত যখন প্রায় তিনটে সে ঘুমাতে যাচ্ছে এমন সময় তার বাবা ঘুম থেকে উঠে জিজ্ঞাসা করলো, “তোমরা এখনও ঘুমাওনি?” ছেলের উত্তর, “ফাঁসি হয়নি।” ……… ছেলে ঘুমাতে যাবার আগে আমায় বললো, “যতই খারাপ লাগুক কোনো ক্রেইজি (উল্টাপাল্টা) কিছু করো না।” …………… তের বৎসরের ছেলে বুঝে মায়ের যন্ত্রণা! না সে ১৯৭১ দেখেনি। সে বাংলাদেশে জন্মায়নি। সে শুধু জানে পাকিস্তানীরা রাজাকারদের নিয়ে তিরিশ লক্ষ মানুষ হত্যা করেছে। না এখনো জানে না ২~৪ লক্ষ নারীর ধর্ষিত হবার কথা। জানবার/বুঝবার কথা নয় এখন।

………………… যাদের ১৯৭১ দেখা, মুক্তিযুদ্ধ যাদের ছাড়া হতো না আজ সেই সব মানুষদের কিছু মানুষ বলছেন, “বয়সের কথা চিন্তা করে ………।” আমার প্রশ্ন, শিশু থেকে বৃদ্ধা যখন ধর্ষিত হচ্ছিলেন, শিশু থেকে বৃদ্ধকে যখন নির্মম ভাবে হত্যা করা হচ্ছিল তখন “বয়স” শব্দটি কোথায় ছিল??????

তের বৎসরের ছেলে মা’র যন্ত্রণা বোঝে। তোমরা সব মানবতাবাদীরা মা’র ধর্ষককে মানবতা দেখাও!!!!!! প্রাপ্তবয়স্ক ধর্ষক/ খুনীর আবার বয়স কি?????????? ক্ষমতার লোভ মা’র ধর্ষককেও ক্ষমা করে দেয়???????!!!!!! ভোটের রাজনীতি এমনই জিনিস!!!

শেয়ার করুন:
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
Copy Protected by Chetan's WP-Copyprotect.