অলৌকিকভাবে বেঁচে গেলেন বিমান যাত্রীরা

US-asiana airlinesউইমেন চ্যাপ্টার (০৭ জুলাই): যুক্তরাষ্ট্রের সানফ্রান্সিসকো বিমানবন্দরে অবতরণের সময় বিমানে আগুন ধরে যাওয়ায় দুজন নিহত হয়েছে। সম্পূর্ণ অলৌকিকভাবে বেঁচে গেছেন এসময় বিমানটিতে থাকা ৩০০ জনেরও বেশি যাত্রী।

সান ফ্রান্সিসকো বিমানবন্দর কর্তৃপক্ষ জানান, এশিয়ানা এয়ারলাইন্সের বিমানটি সান ফ্রান্সিসকো উপসাগরের ওপর দিয়ে উড়ে এসে অবতরণের সময় রানওয়ের কাছাকাছি এসে আগুন ধরে যায়। যাত্রীরা তখন জরুরি নির্গমন পথ দিয়ে বেরিয়ে আসতে সক্ষম হয়। বিমানটির ধ্বংসাবশেষ থেকে দুজনের মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। তাড়াহুড়ো করে নামার সময় আহত হয়েছে কমপক্ষে ১৮১ জন যাত্রী। তাদেরকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। কর্তৃপক্ষ বলছেন, অধিকাংশ আহতের অবস্থা তেমন গুরুতর নয়। তবে সান ফ্রান্সিসকো জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন একটি শিশুসহ পাঁচজনের অবস্থা সংকটজনক।

মার্কিন গোয়েন্দা সংস্থা এফবিআই ঘটনাটি তদন্ত করে দেখছে। বেদপাল সিং নামের একজন যাত্রী পরিবারসহ বেঁচে গেছেন এই দুর্ঘটনা থেকে। তিনি বলেন, বিমানটির পাইলট বা ক্রু কেউই কোনো আগাম সতর্কতা দেননি। কেবল একটি বিকট শব্দ শোনার পরই আগুন ধরে যায় বিমানটিতে। মাত্র ১০ সেকেন্ডের ব্যবধানে ঘটে গেল সবকিছু। অলৌকিক না হলে কেউই বাঁচতো না বলে তিনি মন্তব্য করেন।

এশিয়ানা এয়ারলাইন্স বোয়িং বিমান এবং এর ইঞ্জিন নির্মাতা প্রতিষ্ঠান হচ্ছে প্রাট এন্ড হুইটনি। প্রতিষ্ঠানটি এ বিষয়ে কাজ করার অঙ্গীকার করেছে।

শেয়ার করুন:
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
Copy Protected by Chetan's WP-Copyprotect.